সাম্প্রতিক সংবাদ

লালমনিরহাটের মাঠে মাঠে শোভা পাচ্ছে ‘কালিজিরা’

kalijira

বিডি নীয়ালা নিউজ(৩১জানুয়ারি১৬)- লালমনিরহাট প্রতিবেদনঃ  বাতাসে ভেসে বেড়াচ্ছে মিষ্টি গন্ধ। ঘন সবুজ পাতার মধ্যে হালকা নীল রঙের ফুলে ফুলে ছেয়ে গেছে গাছ। সুন্দর এ দৃশ্য যে কাউকেই কাছে টানে। লালমনিরহাটের মাঠে মাঠে এখন শোভা পাচ্ছে ‘কালিজিরা’ নামের এ ফসলটি। চলতি রবি মৌসুমে রেকর্ড পরিমাণ জমিতে কালিজিরার চাষ করেছেন কৃষকরা।  আগে অনেকে শখের বসে কালিজিরার চাষ করতেন। এখন মাঠজুড়ে পরিকল্পিতভাবে এ ফসলের আবাদ হচ্ছে। এ দৃশ্য এখন সবার কাছে অতিপরিচিত। উত্পাদন খরচ কম, ব্যাপক চাহিদা ও লাভজনক হওয়ায় ব্যাপকহারে ছড়িয়ে পড়েছে ঔষধি ও ভেষজ গুণসম্পন্ন কালিজিরার চাষ। সদরসহ পাঁচটি উপজেলার সাত সহস্রাধিক কৃষকের পরিবারে নতুন সম্ভাবনা জেগে উঠেছে। কালিজিরা ভাগ্য ফিরিয়েছে এসব মানুষের। লালমনিরহাট আঞ্চলিক মসলা গবেষণা ইনস্টিটিউট ও কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতরের দেওয়া তথ্যমতে, জেলায় এবার ৬৩২ হেক্টর জমিতে কালিজিরার আবাদ হয়েছে। সবচেয়ে বেশি আবাদ হয়েছে সদর উপজেলায়। কৃষি বিভাগ হেক্টরে ৩০-৪০ মণ কালিজিরা উত্পাদনের আসা করছে। সে হিসেবে এবার ২ হাজার ৮০০ মণ কালিজিরা উত্পাদন হবে। চাষিরা জানান, কার্তিক মাসের শেষের দিকে কালিজিরা চাষের উপযুক্ত সময়। বপনের তিন-চার মাস পর ফসল পাওয়া যায়। পতিত জমি কম টাকায় লিজ নিয়েও অনেকে কালিজিরার চাষ করছেন। কেউ কেউ আবার উত্পাদিত ফসলের তিন ভাগের এক ভাগ জমির মালিককে দিয়েও আবাদ করছেন।

লালমনিরহাট কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতরের উপপরিচালক সাফায়েত হোসেন বলেন,  এ জেলার প্রায় সব গ্রামে এখন ব্যাপকহারে কালিজিরার আবাদ হচ্ছে। ৭ হাজারেরও বেশি কৃষক প্রতি বছর কালিজিরা চাষে লাভবান হচ্ছেন। কৃষি বিভাগের পক্ষ থেকে কৃষকদের সার্বক্ষণিক পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে।

Facebooktwitterredditpinterestlinkedinmail

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

shared on wplocker.com