সাম্প্রতিক সংবাদ

জিকা ভাইরাসের কবলে অলিম্পিক গেমস

2016-01-23_3_437494

বিডি নীয়ালা নিউজ(২৪জানুয়ারি১৬)-আন্তর্জাতিক প্রতিবেদনঃ মশা বাহিত এক ধরনের ভাইরাসের সংক্রমণে ল্যাটিন আমেরিকার মায়েদের গর্ভধারণ বিলম্বিত করার পরামর্শ প্রদানের পর পরেই এবার ব্রাজিলে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া অলিম্পিক গেমস কে নিরাপদ রাখতে দেয়া হয়েছে কিছু ঘোষণা।

রিও ডি জেনেরিও কর্তৃপক্ষ বলছে এ বছরেই অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া অলিম্পিক গেমসকে জিকা ভাইরাস মুক্ত রাখতে চার মাস আগে থেকেই মশার বিস্তারের এলাকাগুলো পরীক্ষা করা হবে।

খেলা চলা কালীর প্রতিদিন সেসব এলাকা ধোয়ামোছার কাজ করা হবে।

তবে মশা নিধনকারী কোন ওষুধ ছিটানোর বিষয়টি পরিস্থিতি অনুযায়ী করা হবে।

কারণ কর্তৃপক্ষ মনে করছে এতে করে খেলোয়াড় ও দর্শক যারা আসবেন তাদের স্বাস্থ্য ঝুঁকির কারণ হতে পারে।

তবে ব্রাজিলের স্বাস্থ্যমন্ত্রী আশ্বস্ত করে বলছেন খেলাটি যেখানে হবে সেটা অপেক্ষাকৃত ঠাণ্ডা এবং আগস্ট মাসে অলিম্পিক হবে যখন মশা বা মশা বাহিত রোগের প্রকোপ খুব একটা দেখা যায় না।

তবে মন্ত্রীর এই আশার বানী কতখানি কাজে লাগবে সেটা এখন নিশ্চিত হওয়া যাচ্ছে না। অলিম্পিক গেমসে কয়েক কোটি মানুষ জমায়েত হবে ব্রাজিলে।

মাত্র কয়েক দিন আগেই মহিলাদের প্রতি আপাতত সন্তান ধারণ না করার জন্য আহ্বান জানিয়েছেন এল সালভেদরের স্বাস্থ্য উপমন্ত্রী এডুয়ার্ডো এসপিনেজো।

মশক বাহিত এই ভাইরাস গর্ভবতী মায়েদের শরীরে ঢুকতে পারলে তা গর্ভস্থ ভ্রূণকে আক্রমণ করে বলে মনে করা হচ্ছে।

আক্রান্ত মায়েরা যে খুবই ছোট মাথার শিশু জন্ম দিচ্ছেন, তার জন্য দায়ী করা হচ্ছে এই ভাইরাসকে।

কেবল ব্রাজিলেই গত অক্টোবর থেকে এ পর্যন্ত চার হাজার সংক্রমণের ঘটনা ধরা পড়েছে।

২০১৪ সালে ব্রাজিলে ১৫০ টি শিশু জন্ম নিয়েছে , যাদের মাথা শরীরের তুলনায় অস্বাভাবিক রকমের ছোট। মেডিক্যাল পরিভাষায় এটিকে বলা হয় ‘মাইক্রোসেফালি’।

সূত্রঃ বিবিসি বাংলা

Facebooktwitterredditpinterestlinkedinmail

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

shared on wplocker.com