সাম্প্রতিক সংবাদ

মহানগর আ.লীগের কমিটি ঘোষণা

mohanagar-awamilige

বিডি নীয়ালা নিউজ(১০ই এপ্রিল১৬)-অনলাইন প্রতিবেদনঃ  মহানগর আওয়ামী লীগকে প্রথমবারের মত বিভক্ত করে গঠন করা হয়েছে দুটি ইউনিট। এ দুটি ইউনিট এখন থেকে ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগ দক্ষিণ ও উত্তর নামে পরিচালিত হবে। কমিটি দুটির শীর্ষ পদ সভাপতি হিসেবে যথাক্রমে লালবাগ থানার সভাপতি আবুল হাসনাত আর ঢাকা-১১ আসনের সাংসদ এ কে এম রহমতুল্লাহর নাম আনুষ্ঠানিকভাবে ঘোষণা করা হয়েছে।

রোববার (১০ এপ্রিল) সকালে আওয়ামী লীগ সভাপতির ধানমন্ডির রাজনৈতিক কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এ ঘোষণা দেন দলটির সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম।

সংবাদ সম্মেলনে দক্ষিণের সাধারণ সম্পাদক পদে শাহ আলম মুরাদ এবং উত্তরে মো. সাদেক খানের নাম ঘোষণা করা হয়েছে।

এর আগে গত বছরের এপ্রিলে ঢাকা সিটি করপোরেশন নির্বাচনের পর আওয়ামী লীগের কৃষি বিষয়ক সম্পাদক আবদুর রাজ্জাককে মহনগর দক্ষিণ এবং দলটির আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক ফারুক খানকে মহানগর উত্তরের জন্য পৃথক কমিটি গঠনের দায়িত্ব দেন প্রধানমন্ত্রী। দায়িত্বপ্রাপ্ত এ দুই নেতা উত্তরে ঢাকা-১১ আসনের সাংসদ এ কে এম রহমতুল্লাহ ও মো. সাদেক খানকে যথাক্রমে সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক আর দক্ষিণে সভাপতি হিসেবে এম এ আজিজ ও শাহে আলম মুরাদকে সাধারণ সম্পাদক পদে প্রস্তাব করে এর তালিকা সভানেত্রী শেখ হাসিনার কাছে জমা দেন। সভানেত্রীও শনিবার (০৯ এপ্রিল) কমিটি দুটি অনুমোদন দিয়ে অনুমোদনপত্রে স্বাক্ষর করেন।

এর আগে উত্তর ও দক্ষিণের খসড়া কমিটি তৈরি করা হলেও ঢাকা মহানগরের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এম এ আজিজের মৃত্যুর কারণে দক্ষিণের সভাপতি পদ আটকে যাওয়ায় কমিটি গঠন পিছিয়ে যায়। খোদ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রাজধানীতে এক শোকসভায় এম এ আজিজকে সভাপতি করা হয়েছিল বলে তার বক্তৃতায় বলেছিলেন। কিন্তু গত ২৩ জানুয়ারি আজিজের মৃত্যুর পর এ পদে নতুন নেতা খুঁজতে গিয়েই মূলত পিছিয়ে যায় কমিটি ঘোষণা।

তবে গত ২৩ জানুয়ারি এম এ আজিজ মারা যাওয়ায় তার স্থলে লালবাগ থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল হাসনাতকে সভাপতি হিসেবে চূড়ান্ত করেন দলীয় প্রধান শেখ হাসিনা।

সর্বশেষ ২০০৩ সালের ১৮ জুন সম্মেলনের মাধ্যমে মেয়র মোহাম্মদ হানিফকে সভাপতি ও মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়াকে সাধারণ সম্পাদক করে ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের কমিটি গঠন করা হয়। ২০০৬ সালের ২৮ নভেম্বর মেয়র হানিফ মারা গেলে ভারপ্রাপ্ত সভাপতি হিসেবে এম এ আজিজকে দায়িত্ব দেয়া হয়।

আওয়ামী লীগের গঠনতন্ত্র অনুযায়ী প্রতি তিন বছর পর সম্মেলন করার কথা থাকলেও প্রায় ১২ বছর পর ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের সর্বশেষ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয় ২০১২ সালের ২৭ ডিসেম্বর। সম্মেলনে আগের কমিটির সভাপতি (ভারপ্রাপ্ত) এম এ আজিজ ও সাধারণ সম্পাদক মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়াকে নতুন কমিটি ঘোষণা না হওয়া পর্যন্ত দায়িত্বরত থাকতে বলা হয়। একইভাবে আগের কমিটির স্ব স্ব পদের নেতারাই বিগত দিনে দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন।

#বাংলামেইল

 

Facebooktwitterredditpinterestlinkedinmail

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com
shared on wplocker.com