সাম্প্রতিক সংবাদ

দরকার শুধু ধৈর্য ধরে পরিশ্রমের

yc

বিডি নীয়ালা নিউজ (০৪ সেপ্টেম্বর ২০১৬)-ডেস্ক রিপোর্টঃ

ছবিটা ফটোশপের কারসাজি মনে হলেও এটা বাস্তব! মুখের ভেতর দিয়ে ঢুকিয়ে চোখ দিয়ে আঙুল বের করা মানুষটির নাম বিলি ওয়েন। তার জীবনের গল্প বলতেই ছোট আকারের পোস্টের অবতারণা। কেন তার মতো এমন ভয়ংকর চেহারার গল্পই করতে হলো? সে উত্তর পাবেন পোস্টের শেষে।

বিলি ওয়েন ছিলেন পেশায় একজন মোটরসাইকেল মেকানিক। স্ত্রী ও একমাত্র ছেলেকে নিয়েই সুখেই কাটছিলো তার জীবন। শুধু মাঝে মাঝে প্রচন্ড মাথা ব্যথা হতো তার। সেই সাথে নাকের ডানপাশটা একরকম বন্ধই হয়ে যেতো। একে সাইনুসাইটিসের সমস্যা ভেবে ডাক্তাররা তাকে ডিকঞ্জেস্টেন্ট দিয়ে যাচ্ছিলেন। কিন্তু তবুও সমস্যা না সারায় স্ত্রীর জোরাজুরিতে এক বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের শরণাপন্ন হন তারা। সেখানে কিছু পরীক্ষা-নিরীক্ষার পরই ওয়েন তার জীবনের সবচেয়ে বড় দুঃসংবাদটি শুনতে পান। ২০০৯ সালের ফেব্রুয়ারির ১৩ তারিখ ডাক্তার তাকে জানান, তার Sinonasal Undifferentiated Carcinoma (SNUC) নামক এক দুর্লভ ক্যান্সার হয়েছে যার ফলে আক্রান্ত হয়েছে তার নাসারন্ধ্র। তার অবস্থা তখন এতটাই খারাপ ছিলো যে ডাক্তারের মতে তার বাঁচার সম্ভাবনা ছিলো মাত্র ১০ ভাগ!

অপারেশন করে তাকে বাঁচাতে গিয়ে তাই তার ডান চোখ, সেখানকার পেশী ও নার্ভগুলো কেটে ফেলতে হয়। এছাড়া খুব কড়া কোনো গন্ধ না হলে সাধারণ গন্ধ তিনি অনুধাবন করতে পারেন না।

এমন অবস্থায় তাকে দেখতে কতটা ভয়াবহ লাগতে পারে তা তো ছবিটি দেখলেই বোঝা যাচ্ছে। তার মানসিক অবস্থা কেমন হতে পারে একবার চিন্তা করুন তাহলে। আগের মোটরসাইকেল মেকানিকের পেশাতেও ফিরে যাওয়া তার পক্ষে আর সম্ভব ছিলো না। জীবন নিয়ে বেশ হতাশ হয়ে পড়েছিলেন তিনি। কিন্তু নিজের ছেলে এবং স্ত্রীর মুখের দিকে তাকিয়ে যেন নতুন করে বল খুঁজে পান তিনি। তাদের পাশে যেকোনোভাবে জীবনের বাকি সময়টুকু কাটাতে দৃঢ় প্রতিজ্ঞ হয়ে ওঠেন ওয়েন।
তিনি ভেবে দেখলেন, তাকে দেখতে যদি ভয়ংকরই দেখায়, তাহলে সেই ভয়ংকর রুপকে পূঁজি করেও তো কিছু করা যেতে পারে! এমন নেগেটিভ এক জিনিসের ভেতর থেকেও এমন পজিটিভ চিন্তা করতে কতজন মানুষ পারে একবার ভাবুন তো। ওয়েন এমনটাই ভেবেছিলেন। সাথে সাথেই কাজে লেগে গেলেন তিনি।
এখন তিনি বিভিন্ন মিউজিক ভিডিওতে কিংবা হন্টেড হাউজে জম্বির ভূমিকায় অভিনয় করে থাকেন। এছাড়া লস এঞ্জেলসে ‘Venice Beach Freakshow ‘-তে নিজের জীবনের কাহিনী শুনিয়েছিলেন তিনি। আবার AMC Reality Show-এর এক পর্বেও তাকে নিয়ে ফিচার করা হয়েছিলো। বর্তমানে চোখ-মুখের কিছু অংশ হারানো এই বিলি ওয়েন অনেক মানুষের কাছে অনুপ্রেরণার অপর নাম।

কী বুঝলেন? আমার এই নাই, সেই নাই এসব বলে হা-হুতাশ করা কিছুটা
কমান। চারদিকে চোখ মেলে আরেকবার তাকান। দেখবেন এই নাই-এর মাঝেই অনেক কিছু আছে। দরকার শুধু ধৈর্য ধরে পরিশ্রমের।

14232570_1074146059306343_2310048518396405606_n

 y/c
Facebooktwitterredditpinterestlinkedinmail

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com
shared on wplocker.com