সাম্প্রতিক সংবাদ

জাতীয় সাংবাদিক সংস্থার আজীবন সভাপতি নির্বাচিত হলেন মুহম্মদ আলতাফ হোসেন

08-02-2016-472x450

বিডি নীয়ালা নিউজ(১ই মার্চ১৬)-নিজস্ব প্রতিবেদনঃ  জাতীয় সাংবাদিক সংস্থার কেন্দ্রীয় নির্বাহী পরিষদের এক সভা গত শনিবার বাংলাদেশ শিশু কল্যাণ  পরিষদ মিলনায়তনে ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আলমগীর গনির সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয়। সভায় সংস্থার বর্তমান সভাপতি মুহম্মদ আলতাফ হোসেনকে সংস্থার আজীবন সভাপতি ঘোষণার প্রস্তাব সর্বসম্মতিক্রমে গৃহীত হয়। ইতিপূর্বে গত ২রা জানুয়ারি অনুষ্ঠিত সংস্থার ১৭তম দ্বি-বার্ষিক কাউন্সিল অধিবেশনে  মুহম্মদ আলতাফ হোসেনকে সংস্থার আজীবন সভাপতি ঘোষণার প্রস্তাব সর্বসম্মতিতে পাস হয়। তাছাড়া গত ২৩শে জানুয়ারি অনুষ্ঠিত সর্বোচ্চ (স্থায়ী) পরিষদের সভায়ও প্রস্তাবটি সর্বসম্মতভাবে অনুমোদিত হয়। সংস্থার সকল কমিটি প্রস্তাবটি পাস করায় মুহম্মদ আলতাফ হোসেনের জীবিত অবস্থায় সংস্থার সভাপতি পদে আর কোন নির্বাচন হবেনা। কেন্দ্রীয় কমিটির অন্যান্য পদ পূরণে মেয়াদ শেষে গঠনতন্ত্র অনুযায়ী পদক্ষেপ নেয়া হবে।
উল্লেখ্য, দেশের সাংবাদিকতা জগতে মুহম্মদ আলতাফ হোসেন একটি পরিচিত নাম। দেশের অন্যতম প্রবীণ মিডিয়া ব্যক্তিত্ব মুহম্মদ আলতাফ হোসেন ১৯৪৭ সালে বরিশালের বাকেরগঞ্জ উপজেলার নিয়ামতি ইউনিয়নের ঢালমারা  গ্রামে এক সম্ভ্রান্ত পরিবারে জন্ম গ্রহণ করেন। তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষাজীবন  শেষে ১৯৭০ সালে সাংবাদিকতাকে পেশা হিসেবে গ্রহণ করে বিগত ৪৬ বছরে দৈনিক আজাদ, দৈনিক গণকণ্ঠ, দৈনিক জনতা, দৈনিক সমাজ, দৈনিক ইনকিলাব, পত্রিকায় বিভিন্ন সময়ে গুরুত্বপূণ পদে দায়িত্ব পালন করেছেন। ১৯৭০ সাল থেকে ১৯৯৬ সাল পর্যন্ত তিনি বাংলাদেশ বেতারের বাংলা সংবাদ বিভাগে কাজ করেন। তাছাড়া বেতারে বিভিন্ন কথিকা ও সংবাদ পর্যালোচনা লিখেছেন দীর্ঘদিন। তিনি অবিভক্ত ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়ন ও বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের নির্বাহী সদস্য ছিলেন। তিনি নজরুল একাডেমীসহ বিভিন্ন সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের সাথে এখনও সম্পৃক্ত রয়েছেন। তার উদ্যোগেই ১৯৮২ সালের ১২ই ফেব্রুয়ারী দেশের সর্বস্তরের সাংবাদিকদের একক সংগঠন জাতীয় সাংবাদিক সংস্থা প্রতিষ্ঠা লাভ করে। বিভিন্ন সংবাদপত্র ও ম্যাগাজিনে তার বহু  প্রবন্ধ, গল্প, কবিতা ও নিবন্ধ  প্রকাশিত হয়েছে। তিনি দেশের অন্যতম আন্তর্জাতিক বিশেষক হিসেবে পরিচিত। ১৯৭৩ সাল থেকে তিনি আন্তর্জাতিক বিষয়ে নিয়মিত পর্যালোচনামূলক লেখা লিখে আসছেন।
দেশের সাংবাদকি সমাজ বিশেষ করে গ্রামীণ সাংবাদকি সমাজরে কল্যাণে মুহম্মদ আলতাফ হোসনে আজীবন নিবেদিত প্রাণ। দশেরে সংবাদপত্র জগতকে একটি শিল্প হিসেবে গড়ে তোলা এবং সংবাদপত্র ও সাংবাদকিতার স্বাধীনতা নশ্চিতি করার ক্ষেত্রে মুহম্মদ আলতাফ হোসেনের প্রয়াস নরিন্তর। দশেরে সংবাদপত্র শিল্পকে একটি সুষ্ঠু ভত্তিরি উপর প্রতষ্ঠিতি করা এবং র্সবস্তররে সাংবাদকি ভাইদের আর্থিক নিরাপত্তা ও সামাজিক মর্যাদা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে তিনি নিবেদিতপ্রাণ  করছেনে ২১ দফা দাবীনামা। এসব দাবী বাস্তনায়িত হলে দেশের গ্রামীণ ও শহুরে সব ধরণরে সাংবাদকিদরে রুটি রুজি ও সামাজকি র্মযাদা নিশ্চিত হবে তার নেতৃত্বে জাতীয় সাংবাদকি সংস্থা এই ২১ (একুশ) দফা বাস্তবায়নে সারাদেশে আন্দোলন করে যাচ্ছে।

 

Facebooktwitterredditpinterestlinkedinmail

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com
shared on wplocker.com